আইনমন্ত্রীর আশ্বাসে নকলনবিশদের কর্মসূচি স্থগিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

চট্টগ্রাম জেলাসহ ২২টি সাব রেজিস্ট্রার অফিসে কর্মরত নকলনবিশদের চাকরি স’ায়ীকরণসহ বকেয়া পারিশ্রমিকের দাবিতে কর্মবিরতি কর্মসূচি আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের আশ্বাসের পরিপ্রেক্ষিতে গতকাল বুধবার থেকে স’গিত করা হয়েছে।
গতকাল ১৮ মে চট্টগ্রাম সদর রেকর্ড জেলা সংগ্রাম কমিটির বৈঠকে নেতৃবৃন্দ এ সিদ্ধান্ত নেন। গত ১২ মে থেকে কর্মবিরতিতে থাকা চট্টগ্রাম জেলা রেজিস্ট্রেশনসহ ২২ উপজেলায় এ কর্মসূচি পালিত হয়। এতে জমির নকল সরবরাহ কাজে চরম ভোগান্তিতে পড়েছিলেন জমির মালিকরা। তাছাড়া বিপুল পরিমাণ রাজস্ব হারায় সরকার।
কর্মসূচি স’গিত বিষয়ে নকলনবিশ জেলা সংগ্রাম কমিটির আহ্বায়ক মো. এরাদত উল্লাহ সুপ্রভাত বাংলাদেশকে জানান, ঢাকায় গত শনিবার আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হকের সাথে তার বাসভবনে আমাদের বিভিন্ন দাবি নিয়ে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের বৈঠক হয়। বৈঠকে আরও উপসি’ত ছিলেন মহাপরিদর্শন রেজিস্ট্রেশন (আইজিআর) খান আবদুল মান্নান। বৈঠকে নেতৃবৃন্দ নকল নবিশদের দাবি দাওয়া নিয়ে আলোচনা হয় বলে জানান কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ। মন্ত্রী নেতৃবৃন্দের কথা মন দিয়ে শুনেন এবং ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে দাবিগুলো পর্যায়ক্রমে পূরণের আশ্বাস দেন।
সদর রেকর্ড ইউনিটের সভাপতি ও সংগ্রাম কমিটি সদস্যসচিব সৈয়দ মো. আজগর আলী জানান, আমাদের কর্মবিরতির আন্দোলন আপাতত আইনমন্ত্রীর আশ্বাসে স’গিত করা হলো। চট্টগ্রাম জেলাসহ ২২ উপজেলায় এতদিন ধরে নকলনবিশদের আন্দোলন চলছিল। মন্ত্রীর আশ্বাসে আমরা গতকাল বৈঠকে সকলের সিদ্ধান্তক্রমে কর্মসূচি স’গিত করেছি। আমরা আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) থেকে আবার কাজে যোগ দেব। তবে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে দাবি না মানলে পুনরায় আন্দোলনে যেতে বাধ্য হবো।
উল্লেখ্য, ১২ এপ্রিল নকলনবিশদের এ আন্দোলন শুরু হয়েছিল। গত ৩ মে বাংলাদেশ এক্সট্রা মোহরার অ্যাসোসিয়েশন নেতৃবৃন্দ প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি দেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন